ঢাকা রবিবার, ২৭ নভেম্বর ২০২২, ১৩ অগ্রহায়ণ ১৪২৯

যুক্তরাষ্ট্রের পাঠানো চিকিৎসা সামগ্রী বাংলাদেশের কাছে হস্তান্তর

নিজস্ব প্রতিবেদক: | প্রকাশিত: ৭ জুন ২০২১ ২২:১৮; আপডেট: ২৭ নভেম্বর ২০২২ ১৮:২০

হস্তান্তর অনুষ্ঠানে ঢাকায় নিযুক্ত যুক্তরাষ্ট্রের রাষ্ট্রদূত রবার্ট আর্ল মিলার

করোনাভাইরাস মোকাবিলায় যুক্তরাষ্ট্রের পাঠানো চিকিৎসা সামগ্রী বাংলাদেশ সরকারের কাছে হস্তান্তর করা হয়েছে। সোমবার (৭ জুন) এসব চিকিৎসা সামগ্রী হস্তান্তর করেন ঢাকায় নিযুক্ত যুক্তরাষ্ট্রের রাষ্ট্রদূত রবার্ট আর্ল মিলার।

ঢাকার যুক্তরাষ্ট্র দূতাবাস জানায়, আন্তর্জাতিক উন্নয়ন সংস্থা ইউএসএআইডির মাধ্যমে করোনার বিস্তার রোধে এসব সরঞ্জামের সাম্প্রতিকতম সরবরাহটি যুক্তরাষ্ট্র সরকারের পক্ষ থেকে বাংলাদেশ সরকারের কাছে হস্তান্তর করা হয়েছে

চিকিৎসা সামগ্রীর মধ্যে-স্বাস্থ্য সেবাদানকারী পেশাজীবীসহ অন্য সম্মুখসারির কর্মীদের জন্য অত্যাবশ্যকীয় ব্যক্তিগত সুরক্ষামূলক সরঞ্জামসহ শরীরের অক্সিজেন মাত্রা নিরূপণ করার যন্ত্র অক্সিমিটার রয়েছে। এ যন্ত্র ব্যবহার করে করোনা আক্রান্ত রোগীদের শরীরের অক্সিজেনের মাত্রা সহজেই নিরূপণ করা যাবে, ফলে তাদের দ্রুত উপযুক্ত স্বাস্থ্যসেবা ও চিকিৎসা দেওয়া সম্ভব হবে। 

এ ছাড়াও নিজেদের দেশে তৈরি সর্বাধুনিক ১০০টি ভেন্টিলেটর এবং বাংলাদেশ যাতে ভেন্টিলেটর উৎপাদন করতে পারে সেজন্য গ্যাস অ্যানালাইজার দিয়েছে যুক্তরাষ্ট্র।

রাষ্ট্রদূত মিলার বলেন, বিগত ৫০ বছর ধরে যুক্তরাষ্ট্র বাংলাদেশের মানুষের সঙ্গে কাঁধে কাঁধ মিলিয়ে কাজ করছে। বর্তমান সংকট শেষ না হওয়া পর্যন্ত আমরা বাংলাদেশের সঙ্গে থেকে এই মহামারি মোকাবিলায় লড়াই চালিয়ে যাব।

হস্তান্তর অনুষ্ঠানে রাষ্ট্রদূত মিলার, পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের মহাপরিচালক (যুক্তরাষ্ট্র) তৌফিক ইসলাম শাতিল, অর্থ মন্ত্রণালয়ের যুগ্মসচিব-ইআরডি কবির আহমেদ, অসংক্রামক রোগ নিয়ন্ত্রণের (এনসিডিসি) লাইন ডিরেক্টর ডা. মোহাম্মদ রোবেদ আমিন, স্বাস্থ্য অধিদফতরের হাসপাতাল শাখার উপ-পরিচালক ডা. জাহিদুল ইসলাম এবং ঢাকার সিভিল সার্জন ডা. মইনুল আহসান উপস্থিত ছিলেন।

যুক্তরাষ্ট্র দূতাবাস জানায়, গত ২০ বছরের বেশি সময় ধরে যুক্তরাষ্ট্র সরকার বাংলাদেশের স্বাস্থ্য খাতের জন্য এক বিলিয়ন ডলারের বেশি সহায়তা দিয়েছে। নতুন এ সহায়তার মাধ্যমে বাংলাদেশের জনগণের জন্য মানসম্মত ও জীবন রক্ষাকারী স্বাস্থ্যসেবা নিশ্চিতকরণে যুক্তরাষ্ট্রের দীর্ঘমেয়াদী প্রতিশ্রুতির বিষয়টি পুনর্ব্যক্ত হলো।




আপনার মূল্যবান মতামত দিন:


এই বিভাগের জনপ্রিয় খবর
Top